গর্ভাবস্থায় যে সাতটি ভুল করা উচিত নয়

 গর্ভাবস্থা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ সময়। এ সময় সুস্থ থাকাটাই একমাত্র লক্ষ্য। তাই অনেক বিধিনিষেধ মানতে হয়। নিজের অনেক পছন্দ ও ভালো লাগাও বাদ দিতে হয়। কারণ অনেক ক্ষেত্রে অজান্তেই ভুল কাজটি করে ফেলে অনেকে। তাই নিয়মের নড়চড় না করে মেনে চলাই ভালো।

কাঁচা বা আধ কাঁচা খাবার

 

গর্ভবতী নারীদের কাঁচা খাবার খাওয়া উচিত নয়। এমনকি আধাসিদ্ধ ডিম মাংস বা মাছও খাওয়া যাবে না। স্মোকড সি ফুড বা আনপাস্তুরাইজড দুগ্ধজাত দ্রব্যও খাওয়া উচিত নয়।

কফি খাওয়ার ইচ্ছা

 

ক্যাফিন জাতীয় খাবার গর্ভবতী নারীদের মোটেও খাওয়া উচিত নয়। তাই গর্ভাবস্থায় কফিও খেতে বারণ করা হয়। এই জাতীয় খাবারে রক্তচাপ বেড়ে যেতে পারে। শরীরে জলের ঘাটতি হতে পারে। কফি ছাড়াও চা, চকোলেট, সোডাতেও ক্যাফিন থাকে। তাই এগুলি এড়িয়ে চলতে হবে।

একটানা দাঁড়িয়ে বা বসে থাকা

 

খুব বেশিক্ষণ দাঁড়িয়ে বা বসে থাকা গর্ভবতী নারীদের উচিত নয়। এতে পায়ের পাতা ফুলে যেতে পারে। অনেকক্ষণ পা ঝুলিয়ে বসে কাজ করতে বাধ্য হলে মাঝে মাঝে বিরতি দিতে হবে। দু’টো পা টুলের ওপরে তুলে রেখে পা ছড়িয়ে আরাম করে বসতে হবে।

হটটাব বা সূর্যস্নান

 

অনেকেই হটটাবে স্নান করতে ভালোবাসেন, কারণ এতে মানসিক ও শারীরিক চাপ কষ্ট দূর হয়। কিন্তু গর্ভাবস্থায় এটি মোটেও উচিত নয়। সূর্যস্নানও করা উচিত হবে না। কারণ বিশেষজ্ঞরা বলেন, শরীরের তাপমাত্রা বেড়ে গেলে গর্ভস্থ সন্তানের শারীরিক সমস্যা দেখা দিতে পারে।

মদ্য বা ধূমপান

 

গর্ভাবস্থায় ড্রাগ, অ্যালকোহল ও সিগারেট থেকে দূরে থাকা উচিত। তাতে গর্ভস্থ শিশু সুস্থ স্বাভাবিক ভাবে বেড়ে উঠতে পারে।

লোকের কথায় কান

 

সব শেষে বলা ভালো, এই সময় অনেকে অনেক কথাই অনেক ক্ষেত্রে বলে থাকেন, কিন্তু কোনো কিছুতে ভয় পেয়ে গুমরে থাকলে চলবে না। বরং যে কোনো সমস্যায় বিশেষজ্ঞ বা চিকিৎসকের সঙ্গে আলোচনা করুন।

আরো দেখুন—

 

গর্ভাবস্থায় যে সাতটি